একবার করোনাভাইরাস হলে আবারো করোনা ভাইরাস হওয়ার সম্ভাবনা আছে কিনা?

করোনা ভাইরাস হিউম্যান বডি কে আক্রান্ত করে, ফলে মানব দেহে শ্বাসকষ্টসহ ফুসফুসে শ্বাস-প্রশ্বাস চলনে বাধা প্রদান করে থাকে। অতিরিক্ত হারে করোনাভাইরাস শরীরে আক্রান্ত করলে রোগীর মৃত্যু ঘটে। দেশ এবং বিদেশের সকল রোগের পরিসংখ্যান লক্ষ্য করলে আমরা দেখতে পাই, কিছু কিছু রোগী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েও কিছুদিন পর সুস্থ হয়ে গেছেন। কিন্তু এটা কোন মেডিসিন দিয়ে নয় তারা নিজের যত্ন ও পরিচর্যার ফলে সুস্থতা লাভ করেছেন। 

এখন কথা হলো করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়ে যাওয়ার পর আবার পুনরায় করনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা কতটুকু?  

ইউনাইটেডস্টেট অফ আমেরিকা কিছু বিজ্ঞানী নিশ্চিত করেছেন যে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত কোনো ব্যক্তির সুস্থতা লাভ করার পর পুনরায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা অনেকটা কমে যায়। কেননা যারা একবার করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয় তাদের ইমিউনি সিস্টেম অনেকটা ডেভলপ করে। যার ফলে মানুষের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা অনেক বৃদ্ধি পায়। ফলে তার করোনাভাইরাসে পুনরায় আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা অনেকটা কমে যায়। কিন্তু গবেষকরা এই মত প্রকাশ করলেও পরিসংখ্যান ও বিভিন্ন দেশের মানুষের তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা যায় যে, এমন বহু ঘটনা ঘটেছে যে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পর, সুস্থ হয়েও আবার তারা আক্রান্ত হয়েছেন। 

তাদের অসাবধানতার কারণেই এমনটা আবার ঘটেছে। বাংলাদেশে এমন একটা ঘটনা ঘটেছে। মাদারীপুরের এক ব্যক্তি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়। কিছুদিন পরে করোনাভাইরাস টেস্টে তার নেগেটিভ আসলে সে বাসায় গিয়ে দু-চারজনের জন্য ভোজনের আয়োজন করেন। ফলে অনেক লোক তার বাসায় উপস্থিত হন। কিন্তু পরে দেখা যায় সেখান থেকে আরো চার ব্যক্তি করোনায় অাক্রান্ত হয়ে যায়। সুতরাং আমরা বুঝতে পারি একবার করোনায় আক্রান্ত হলে আবারও হওয়ার সম্ভাবনা অনেক ক্ষেত্রে রয়েছে। তাই আমাদের সতর্ক হতে হবে যেন করোনাভাইরাস একবার আক্রান্ত হলে, যতদিন পর্যন্ত না করোনা উপসর্গ মানুষের উপর থেকে না যায়, ততদিন পর্যন্ত আমাদের সাবধানতা অবলম্বন করে থাকতে হবে এবং সবসময় পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকতে হবে। হাত-পা সব সময় পরিষ্কার রাখতে হবে। বাইরে গেলে মুখে মাক্স ব্যবহার করতে হবে। অবশ্যই মানুষের সংস্পর্শ এড়িয়ে চলতে হবে। যতটা সম্ভব বাসায় থাকতে হবে। বর্তমান অবস্থায় বাসায় থাকায় নিরাপদ। সুতরাং আমরা চেষ্টা করব সবাই বাসায় থেকে নিরাপদ থাকার জন্য, পরিবারকে নিরাপদ রাখার জন্য। অনলাইন পত্রিকার সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ। প্রতিনিয়ত আপডেট খবর পেতে অনলাইন পত্রিকার সাথে থাকুন। চোখ রাখুন অনলাইন পত্রিকা ফেসবুক পেইজে।


 প্রতিবেদন
আদনান হোসেন তরু।

কোন মন্তব্য নেই

Write your comment here........

Blogger দ্বারা পরিচালিত.